আগামি বছর থেকে ইএফটির মাধ্যমে সরকারী কর্মচারীদের বেতন বরাদ্দ

0
157

দেওয়ানবাগ প্রতিবেদক: আগামি অর্থবছর থেকে সরকারী কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন বরাদ্দ স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে হবে। এ লক্ষ্যে কাজ করছে অর্থ মন্ত্রণালয়।
এত দিন সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, বিভাগ বা এর অধীনস্ত সংস্থা তাদের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা বাবদ বরাদ্দ চাইতো। তাদের চাওয়ার ওপর ভিত্তি করে বাজেট তৈরি করতো অর্থ মন্ত্রণালয়। আর এ কাজটি ম্যানুয়ালি হওয়ায় অর্থবছর শেষেও বেতন-ভাতা বাবদ অতিরিক্ত বরাদ্দের চাপ বাড়তো। এতে বাজেটের অর্থ বরাদ্দ দিতে বেগ পেতে হতো অর্থ মন্ত্রণালয়ের।
তবে আগামী ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেটে এ বিড়ম্বনা থেকে মুক্তি পেতে বেতন-ভাতাদির বাজেট স্বয়ংক্রিয়ভাবে প্রণয়নের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। এতে করে বাজেট বাস্তবায়নে স্বচ্ছতাও বাড়বে বলে মনে করছে সরকার। এ জন্য সব মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও এর অধীনস্ত প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের তথ্য চেয়েছে অর্থ মন্ত্রণালয়।
গত ১৬ আগস্ট মন্ত্রণালয়ের অর্থ বিভাগের উপসচিব মো. তৌহিদুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি চিঠি সরকারের সব মন্ত্রণালয় ও বিভাগে পাঠানো হয়েছে। এ চিঠিতে কোনো মন্ত্রণালয় বা বিভাগ ও তাদের অধীনস্ত প্রতিষ্ঠানে কোন পদে কত জন জনবল আছে, কার বেতন কত, কতজন পেনশনভোগী রয়েছে- এসব জনাতে চাওয়া হয়েছে। আগামী ৩১ আগস্টের মধ্যে এসব তথ্য অর্থ বিভাগে জানাতে বলা হয়েছে।


চিঠিতে বলা হয়, সরকারের আর্থিক ব্যবস্থাপনা আরও সুসংহত করার জন্য আগামী ২০২১-২২ অর্থবছর হতে সরকারি কর্মচারীদের বেতন-ভাতাদির বাজেট স্বয়ংক্রিয়ভাবে প্রণয়নের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। এর পাশাপাশি কর্মচারীদের বেতন-ভাতা ও পেনশন কার্যক্রম সহজতর ও অধিকতর স্বচ্ছতা নিশ্চিতকরণে বর্তমানে ‘অনলাইন পে-ফিক্সেশন’ ডাটাবেজ হতে নতুন বাজেট ও হিসাবরক্ষণ শ্রেণিবিন্যাস পদ্ধতি অনুযায়ী রি-ডিজাইনকৃত আইবাস প্লাস-এর ডাটাবেজে সব কর্মচারীর তথ্য স্থানান্তরের কার্যক্রম চলমান আছে।
এসব কার্যক্রম সফলভাবে বাস্তবায়ন ও ইলেকট্রনিক ফান্ড ট্রান্সফার বা ইএফটির মাধ্যমে সরকারি কর্মচারীদের বেতন-ভাতা ও পেনশন পরিশোধের লক্ষ্যে সকল মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠান, অধীনস্ত অধিদফতর, পরিদফতর ও অধস্তন অফিস এবং মাঠ পর্যায়ের অফিসসমূহের অর্গানোগ্রাম, নিয়োগবিধি ও পদ মঞ্জুরি অনুযায়ী পদবি, পদসংখ্যা ও গ্রেড আইবাস প্লাস সিস্টেমে অন্তর্ভুক্ত করা প্রয়োজন।


বর্ণিত প্রেক্ষাপটে সরকারি কর্মচারীদের বেতন-ভাতাদির বাজেট আগামী ২০২১-২২ অর্থবছর হতে স্বয়ংক্রিয়ভাবে প্রণয়ন ও ইএফটির মাধ্যমে কর্মচারীদের বেতন-ভাতা ও পেনশন প্রাপ্তি সহজতর করার লক্ষ্যে সকল মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠান, অধীনস্থ অধিদফতর বা পরিদফতর ও অধস্তন অফিস ও মাঠ পর্যায়ের অফিসসমূহের অর্গানোগ্রাম, নিয়োগবিধি ও পদ মঞ্জুরির সত্যায়িত অনুলিপি আগামী ৩১ আগস্টের মধ্যে অর্থ বিভাগে পাঠানোর বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের অনুরোধ করা হয়েছে।
অর্থ বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরের বাজেটে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য বেতন-ভাতা বাবদ রাখা হয়েছে রয়েছে ৬৮ হাজার ৪৬৪ কোটি টাকা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here